ডিসেম্বর ২২, ২০২১
বিবাহিত ছাত্রীদের বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হলের আসন সুবিধা বাতিলের সিদ্ধান্ত অর্বাচিন এবং বৈষম্যমূলক

স্মারকনং- না.প- ১২/২০২১-৬০৭

৭ পৌষ ১৪২৮/২২ ডিসেম্বর ২০২১


প্রতিবাদ বিবৃতি

বিবাহিত ছাত্রীদের বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হলের আসন সুবিধা বাতিলের সিদ্ধান্ত অর্বাচিন এবং বৈষম্যমূলক


সম্প্রতি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কয়েকটি আবাসিক হলের কর্তৃপক্ষসহ টাঙ্গাইলের মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের আলেমা খাতুন ভাসানী হল কর্তৃপক্ষ আবাসন সংকটের অজুহাতে ‘বিবাহিত ছাত্রীরা’ হলে থাকতে পারবেন না মর্মে সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এই সিদ্ধান্ত বিবাহিত নারীর উচ্চ শিক্ষা গ্রহণের ক্ষেত্রে একটা বড় অন্তরায়।

বিশ্ববিদ্যালয়ের অনেক ছাত্রী ঢাকার বাইরে থেকে পড়তে আসেন, যাদের অধিকাংশের বাইরে বাসা ভাড়া করে লেখাপড়া চালিয়ে যাওয়ার মতো আর্থিক সক্ষমতা নেই। বিশ্ববিদ্যালয়ে অনেক বিবাহিত ছাত্রীও আসেন বা অনেক ছাত্রীর পড়ালেখা অবস্থায় বিয়ে হয়ে যায়। অপরদিকে এই সিদ্ধান্ত বৈষম্যমূলক, কারণ ছাত্রদের হলে এ ধরণের কোন নিয়ম নেই। শুধু তাই নয়, ছাত্রজীবন শেষ হলেও বছরের পর বছর অনেক ছাত্র রাজনৈতিক ছত্রছায়ায় বহাল তবিয়তে হলে বসবাস করে।

নারীপক্ষ মনে করে, বিবাহিত ছাত্রীদের বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হলের আসন সুবিধা বাতিলের সিদ্ধান্ত অর্বাচিন এবং বৈষম্যমূলক, তাই অনতিবিলম্বে এই সিদ্ধান্ত বাতিল করা হোক।

তামান্না খান পপি
আন্দোলন সম্পাদক
নারীপক্ষ।

Pin It on Pinterest

Share This